Tuesday , September 29 2020
Breaking News
You are here: Home / কুষ্টিয়ার খবর /  মহিবুলের স্বীকারোক্তি, যুবলীগ নেতা রিমান্ডে
 মহিবুলের স্বীকারোক্তি, যুবলীগ নেতা রিমান্ডে

 মহিবুলের স্বীকারোক্তি, যুবলীগ নেতা রিমান্ডে

নিজস্ব প্রতিবেদক:
কুষ্টিয়ায় জাতীয় পরিচয়পত্র (এনআইডি) জালিয়াতি করে অন্যের জমি রেজিস্ট্রেশন ও দখলের ঘটনায় করা মামলার এজাহারনামীয় ও টাকা বিনিয়োগকারী হার্ডওয়ার ব্যবসায়ী মহিবুল ইসলাম (৪০) আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দী দিয়েছেন। একইসাথে মামলার অপর আসামি শহর যুবলীগের (সদ্য বিলুপ্ত কমিটি) আহ্বায়ক আশরাফুজ্জামান সুজনের ৩ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত।

সোমবার (১৪ সেপ্টেম্বর) দুপুরে আটককৃত যুবলীগ নেতা আশরাফুজ্জামান সুজনের ৩ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত।

এ ঘটনায় গ্রেপ্তার অন্য আসামিরা হলেন- কুষ্টিয়া শহরের আড়–য়াপাড়া এলাকার খন্দকার আবুল হোসেন ছেলে ওয়াদুল ওরফে মিন্টু খন্দকার (৬০), কুমারখালী উপজেলার শালঘর মধুয়া গ্রামের আতিয়ার শেখের ছেলে মিলন হোসেন (৩৮), মিন্টু খন্দকারের বোন লাহিনী দাসপাড়ার বাসিন্দা সাত্তার শেখের স্ত্রী ছানোয়ারা খাতুন (৫০) এবং অপর বোন খন্দকার আব্দুল আজিজেরর স্ত্রী জাহানারা খাতুন (৪৫)।

একইসাথে পরিচয়পত্র জালিয়াতি করে জমি রেজিস্ট্রেশনের ঘটনায় ক্রেতা হিসেবে জড়িত মিরপুর উপজেলার সাহাজ উদ্দিনের ছেলে মহিবুল ইসলামকেও (৪৫) গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা কুষ্টিয়া মডেল থানার পুলিশ পরিদর্শক আকিবুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, রোববার সন্ধ্যায় কুষ্টিয়া শহরের বড়বাজার এলাকার হাজী মোহাম্মদ আলীর ছেলে মহিবুলকে গ্রেপ্তার করে ডিবি পুলিশ। কুষ্টিয়া অতিরিক্ত চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আমলী আদালতের বিচারক রেজাউল করীমের আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দী দেয়ায় তাকে জেল হাজতে প্রেরণের আদেশ দেন।

উল্লেখ্য, জাতীয় পরিচয়পত্র জালিয়াতি করে একটি চক্র নিজেরাই ক্রেতা-বিক্রেতা সেজে অন্যের জমি রেজিস্ট্রেশন ও দখলের ঘটনায় কয়েকটি গণমাধ্যমে অনুসন্ধানী সংবাদ প্রচার হয়। পরে এই জালিয়াত চক্রের বিরুদ্ধে শহরের এন এস রোডের বাসিন্দা এম এম এ ওয়াদুদের প্রায় ১০০ কোটি টাকা মূল্যের সম্পত্তি বিক্রয় ও হস্তান্তর প্রক্রিয়ার মাধ্যমে দখল চেষ্টার অভিযোগে ১৮ জনের নাম উল্লেখসহ ১০/১২ অজ্ঞাত ব্যক্তির বিরুদ্ধে কুষ্টিয়া মডেল থানায় মামলা দায়ের করেন। এ মামলার এজাহারনামীয় ৭ জনকে গ্রেপ্তার করে আদালতে সৌপর্দ করে পুলিশ।

About দৈনিক সময়ের কাগজ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Scroll To Top
error: Content is protected !!