Saturday , November 28 2020
You are here: Home / কুষ্টিয়ার খবর / কুষ্টিয়া পোস্ট অফিসের বিরুদ্ধে অভিযোগ: চাকরির পরীক্ষার পরে পৌঁছালো এডমিট কার্ড
কুষ্টিয়া পোস্ট অফিসের বিরুদ্ধে অভিযোগ: চাকরির পরীক্ষার পরে পৌঁছালো এডমিট কার্ড

কুষ্টিয়া পোস্ট অফিসের বিরুদ্ধে অভিযোগ: চাকরির পরীক্ষার পরে পৌঁছালো এডমিট কার্ড

কুষ্টিয়া অফিস:
কুষ্টিয়া পোস্ট অফিসের সেবার বেহাল দশা চাকরি পরীক্ষার পরে পৌঁছালো এডমিট কার্ড। গত ১৪ সেপ্টেম্বর পরীক্ষার এডমিট কার্ড কুষ্টিয়া পোস্ট অফিসে এসে পৌঁছায়। কিন্তু এডমিট কার্ডটি ২৪ অক্টোবর প্রাপকের বাড়িতে গিয়ে পৌঁছায়। পোস্ট অফিসে পৌঁছানোর ৩০ দিন পরে প্রাপক এডমিট কার্ডটি হাতে পায়। ততো দিনে তার পরীক্ষার সময় অতিবাহিত হয়ে যায় বলে অভিযোগ জানায় ভুক্তভোগী।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ভুক্তভোগী বলেন, এখানে সবাই সবার দায় এড়িয়ে চলে যাচ্ছে। এভাবে যদি চলতে থাকে সাধারণ জনগণ চিঠি দিয়ে আস্থা পাবে না, সেই চিঠিটি সেই ঠিকানায় পৌঁছাবে কিনা তার ভরসা নেই। এভাবেই চলছে কুষ্টিয়া পোস্ট অফিসের কাজকর্ম। আমার একটাই কথা আমার সাথে যেমনটা হয়েছে, সেটা অন্য কারো সাথে যেন না হয়। আমি এর বিচার চাই। এখানে শুধু একটি মনের আশা আকাঙ্ক্ষা নষ্ট হয়ে যায় নি, নষ্ট হয়ে গিয়েছে একটি পরিবারের স্বপ্ন। আমার তো কোন ভুল ছিল না । তাহলে কেন আমার সাথে এমনটা করলো পোস্ট অফিস। যদি এভাবে মানুষকে হয়রানি করতে থাকে তাহলে সাধারণ জনগণ কোন ভরসায় চিঠিপত্র আদান—প্রদান করবে।

সরেজমিনে কুষ্টিয়ার পোস্ট মাস্টার আবুল কালাম আজাদ এর সাথে দেখা করতে গেলে অফিসে তার দেখা মেলেনি। পোস্ট অফিসের অন্যান্য কর্মচারিদের কাছে আবুল কালাম আজাদের মোবাইল নাম্বার চাওয়া হলেও তারা নম্বর দেননি। পরে বিকেলে তাকে অফিসে পাওয়া যায়।

কুষ্টিয়ার প্রধান ডাকঘরের পোস্ট মাস্টার আবুল কালাম আজাদ বলেন, বিষয় আমার জানা নেই, আমার কিছুই করার নেই। এই বিষয়টি কমলাপুর পোস্ট মাস্টার সব থেকে ভালো জানে। আমরা সময় মতো তার কাছে ১৫ সেপ্টেম্বর চিঠি পৌছে দিয়েছি। সে হয়তো চিঠি দিতে দেরি করেছে।

বিষয়টি কমলাপুর পোস্ট মাস্টারের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, কুষ্টিয়া পোস্ট অফিস থেকে আমাকে চিঠি দেয়া হয়েছে ২৩ অক্টোবর। এখানে আমার কিছু করার নাই, আমার দোষ নেই। এই বিষয়টি আপনি আবুল কালাম আজাদ স্যারের কাছ থেকে জানতে পারবেন। কেন এত দেরিতে চিঠি প্রদান করেছে?

About দৈনিক সময়ের কাগজ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Scroll To Top
error: Content is protected !!