Saturday , May 8 2021
You are here: Home / খুলনা ও বরিশাল / কুমারখালী থানা হাজতে সাংবাদিক নির্যাতনের প্রতিবাদে মানববন্ধন
কুমারখালী থানা হাজতে সাংবাদিক নির্যাতনের প্রতিবাদে মানববন্ধন

কুমারখালী থানা হাজতে সাংবাদিক নির্যাতনের প্রতিবাদে মানববন্ধন

নিজস্ব প্রতিবেদক:
কুষ্টিয়ার কুমারখালী থানায় বেসরকারি টেলিভিশন এটিএন বাংলা’র ক্যামেরা পারসনকে চোখ বেঁধে নির্যাতনের অভিযোগে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।
বৃহস্পতিবার (২৯ এপ্রিল) সকাল ১১ টায় কুষ্টিয়া-রাজবাড়ী মহাসড়কের কুমারখালী বাসস্ট্যান্ডে এই বিক্ষোভ ও মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।
মানববন্ধনে বক্তারা ২৪ ঘণ্টার মধ্যে এটিএন বাংলার ক্যামেরা পারসন নাজমুস হাসিবকে চোখ বেঁধে থানায় নির্যাতনের সাথে জড়িত কুমারখালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (তদন্ত) রাকিব, সাব ইন্সপেক্টর মো. হাসান, সাব ইন্সপেক্টর বিলকিসকে অপসারণের দাবি জানান।
আর এই দাবি মানা না হলে দেশব্যাপী কঠোর আন্দোলনের ডাক দেওয়া হবে বলেও মানববন্ধনে সাংবাদিক নেতারা জানান।
প্রসঙ্গত, গত ২৮ শে এপ্রিল (বুধবার)
কুষ্টিয়ার কুমারখালী উপজেলার বাগুলাট ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপের মধ্যে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষ শুরু হয়। সে সময় পুলিশ ১৫ রাউন্ড গুলি চালিয়েছে বলেও জানা যায়। সংঘর্ষের সময় এটিএন বাংলার ক্যামেরাপারসন হাসিব সংবাদ সংগ্রহ করতে গেলে তাকে প্রথমে ডিবি পুলিশ আটক করে।
পরবর্তীতে ডিবি পুলিশ কুমারখালী থানা পুলিশের হস্তান্তর করলে চোখ বেঁধে হকিস্টিক ও হাতুড়ি দিয়ে মারপিট করে গুরুতর আহত করে। অথচ একই সাথে আরো ৯ জনকে আটক করা হলেও থানাতে এনে সাংবাদিক পরিচয় দেওয়ার পর একমাত্র এটিএন বাংলান ক্যামেরা পারসন হাসিবের চোখ বেঁধে নির্যাতন করা হয়।
সংবাদকর্মী হাসিবকে নির্যাতনের খবর শুনে তাৎক্ষণিক কুষ্টিয়াতে কর্মরত শতাধিক সাংবাদিক থানাতে অবস্থান নেয়। সে সময় সাংবাদিকরা হাসিবের চিকিৎসা ব্যবস্থা নিশ্চিত করার আবেদন জানালেও কুমারখালী থানা প্রশাসন কোনো সাড়া দেয়নি। পরবর্তীতে থানার মূল ফটকে তালা বন্ধ করে ভেতরে অবস্থান নেয় পুলিশ।  এসময় কুমারখালী থানাতে সেবা নিতে আসা সাধারণ মানুষ বিপাকে পড়ে যায়।
মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশে কুষ্টিয়ার  শতাধিক ইলেকট্রনিক ও প্রিন্ট মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

About দৈনিক সময়ের কাগজ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Scroll To Top
error: Content is protected !!