Tuesday , December 7 2021
You are here: Home / ক্যাম্পাস / ইবিতে ছয় দফা দাবিতে গণস্বাক্ষর
ইবিতে ছয় দফা দাবিতে গণস্বাক্ষর

ইবিতে ছয় দফা দাবিতে গণস্বাক্ষর

 

কুষ্টিয়া অফিস :
কুষ্টিয়া থেকে ঝিনাইদহ পর্যন্ত সড়ক সংস্কার ও পরিবহন সমস্যা নিরসনসহ ৬ দফা দাবিতে গণস্বাক্ষর কর্মসূচি পালন করেছে ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের (ইবি) শিক্ষার্থীরা। মঙ্গলবার সকাল ১০ টা থেকে প্রায় দুপুর ২ টা পর্যন্ত প্রায় ৫০০ শিক্ষার্থী গণস্বাক্ষর করেন। পরে ২ টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিবহন প্রশাসক প্রফেসর ড. আনোয়ার হোসেনর কাছে গণস্বাক্ষর সংবলিত স্বাক্ষরলিপি জমা দেয় শিক্ষার্থীরা।

তাদের অন্য দাবিসমূহ হলো- কুষ্টিয়া ও ঝিনাইদহ রুটে চলাচলকারী ক্যাম্পাসের নিজস্ব ও ভাড়ায় চালিত গাড়িগুলোরন যথাযথ ফিটনেস সনদ, চালকের লাইসেন্স ও হেল্পার নিশ্চিত করা, গাড়িগুলোতে বিশ্ববিদ্যালয়ের লোগো সম্বলিত স্টিকার ও নির্দিষ্ট রুট প্লান করা, ক্যাম্পাসের বাসে বহিরাগতদের উঠানো বন্ধ করা, ফিটনেস বিহীন গাড়ি চলাচল বন্ধ ও পরিবর্তন এবং যাতায়াতের সময় শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে ভাড়া আদায়, অসৌজন্যমূলক আচরণ, শিক্ষার্থীদের বাসে উঠাতে অনীহা বন্ধকরণ।

স্মারকলিপিতে শিক্ষার্থীরা বলেন, স্বাধীনতা পরবর্তী প্রথম বিশ্ববিদ্যালয় হয়েও মাত্র ২৩ শতাংশ শিক্ষার্থীর আবাসন ব্যবস্থা রয়েছে। বাকি শিক্ষার্থীরা ক্যাম্পাস পাশ্ববর্তী বিভিন্ন এলাকা, কুষ্টিয়া ও ঝিনাইদহে অবস্থান করে। তারা ক্যাম্পাসের বাসে চলাচল করে। এছাড়া হলে থাকা শিক্ষার্থীরাও বিভিন্ন কাজে ও টিউশনি করাতে কুষ্টিয়া ও ঝিনাইদহে যাতায়াত করেন। কিন্তু এই মহাসড়কের বেহাল দশায় শিক্ষার্থীরা চরম ঝুঁকির মুখে পড়েছে। ৫০ কিলোমিটার রাস্তা যেন মরণফাঁদে পরিণত হয়েছে।

তারা বলেন, কুষ্টিয়া-ঝিনাইদহ রুটে চলাচলকারী ক্যাম্পাসের পরিবহনগুলো বেহাল দশার চরমে পৌঁছেছে। একদিকে মরণফাঁদের সড়ক অন্যদিকে চলাচলের অনুপযোগী ফিটনেসবিহীন গাড়ি সব মিলিয়ে শিক্ষক-শিক্ষার্থী, কর্মকর্তা-কর্মচারীরা সবাই চরম শঙ্কায় রয়েছে। অতি দ্রæত আমাদের যৌক্তিক দাবিগুলো বাস্তবায়নের জোর দাবি জানাচ্ছি।

পরিবহন প্রশাসক প্রফেসর ড. আনোয়ার হোসেন বলেন, ‘শিক্ষার্থীদের দাবিগুলো যৌক্তিক। বিষয়গুলো নিয়ে আমরা কুষ্টিয়া-ঝিনাইদহ বাস মালিক সমিতির সাথে বসবো। এছাড়া প্রতিটি গাড়িতে বিশ্ববিদ্যালয়ের লোগো সম্বলিত স্টিকার লাগানোর ব্যবস্থা করা হচ্ছে।’

এদিকে ৯ দফা দাবিতে গত ১৮ অক্টোবর স্মারকলিপি ও ২১ অক্টোবর মানববন্ধন করেছে বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্র মৈত্রী। এরপর সড়ক সংস্কারের দাবিতে ২০ অক্টোবর রাস্তা অবরোধ করেন শিক্ষার্থীরা। এছাড়া ২৩ অক্টোবর ৬ দফা দাবিতে স্মারকলিপি প্রদান বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র ইউনিয়ন সংসদ।

About দৈনিক সময়ের কাগজ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Scroll To Top
error: Content is protected !!